বিয়ে ছাড়াই প্রেমিকের সঙ্গে এক ফ্ল্যাটে থাকতেন পল্লবী, হয়েছিল ঝগড়াও!

আজ সকালে কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেত্রী পল্লবী দে মা,রা গেছেন। আজ রবিবার ১৫ মে তার ঝুলন্ত ম,রদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এমন রহস্যজনক মৃ,ত্যুর পর নানান তথ্য উঠে আসছে গণমাধ্যমে। প্রাথমিক তদন্ত সেরে পুলিশ জানিয়েছে, বিছানার চাদর দিয়ে পল্লবীর গলায় ফাঁস লাগানো ছিল। তবে তিনি আ,ত্মহত্যা করেছেন কিনা, সেটা এখনো নিশ্চিত নয়। কোনো সুইসাইড নোটও পাওয়া যায়নি।

জানা গেছে, গত দেড় মাস ধরে এক যুবকের সঙ্গে কলকাতার গড়ফা এলাকায় বসবাস করতেন পল্লবী। তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তবে বিয়ে করেননি। এর আগে তারা হাওড়ায় থাকতেন। আজ রবিবার ১৫ মে সকালে সিগারেট খেতে বাইরে গিয়েছিলেন পল্লবীর সঙ্গী।

এরপর ফিরে দেখেন দরজা ভেতর থেকে বন্ধ। দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকতেই তিনি পল্লবীর ঝুলন্ত দেহ দেখতে পান। তাৎক্ষণিক পুলিশে খবর দেন তিনি। এরপর পুলিশ এসে ম,রদেহ উদ্ধার করে।

আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শনিবার থেকে পল্লবী ও তার সঙ্গীর মধ্যে কয়েকবার কথাকাটাকাটি হয়েছিল। তবে কী নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়, তা এখনো নিশ্চিত হতে পারেনি পুলিশ।

এদিকে ‘আমি সিরাজের বেগম’ সিনেমায় লুৎফা-র চরিত্রে অভিনয় করে নজর কাড়েন পল্লবী। এর আগে তিনি ‘রেশম ঝাঁপি’ ধারাবাহিকেও গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে কাজ করেছিলেন। বর্তমানে ‘মন মানে না’ নামে একটি ধারাবাহিকের মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করছিলেন। কিন্তু তার আকস্মিক মৃ,ত্যুতে সেই ধারাবাহিকের ভবিষ্যত আপাতত অনিশ্চিত।