গ্যাস্ট্রিকের আড়ালেও লুকিয়ে থাকে ক্যা’ন্সার!

আফজল হোসেনের (ছদ্মনাম) বয়স ৫৯। আমার কাছে এসেছেন খাবারে অরুচি, বমি বমি ভাব, কিছু খেলে বমি হয়ে যাওয়া, খাওয়ার পর পেটে ব্যথা এবং মাথা ঘুরানো ও খুব দুর্বলতা নিয়ে। স্থানীয় ফার্মেসি থেকে তথাকথিত গ্যাস্ট্রিক বলে

গ্যাসের বড়ি ও ডমপিরিডন খেয়েছেন কয়েকমাস ধরে। সঙ্গে ভিটামিন ফাইল। তিন ব্যাগ ব্লাড ট্রান্সফিউশন করে রক্তশূন্যতা কারেকশন করে কেন রক্ত কমে গেল, সেই কারণ বের করতে বলি রোগীকে। এন্ডোস্কপির রিপোর্টে পাকস্থলীর ক্যান্সার ধরা পড়ে।

খাবারে অরুচি, বমি বমি ভাব ও ক্যান্সারের উপসর্গ হতে পারে। কিছু হলেই ডাক্তার না দেখিয়ে ফার্মেসি থেকে বলে ওষুধ খাওয়ার অভ্যাস কতটা ভয়ংকর এই রোগী তার একটা উদাহরণ। আরেক ব্যক্তি মো. মইন উদ্দিনের (ছদ্মনাম) বয়স ৬০। আমার কাছে এসেছেন বমি বমি ভাব, খাবারে অরুচি, খাবার খেতে কষ্ট হয়, খাবার বুকে আটকে থাকে যেটাকে চিকিৎসা বিজ্ঞানের পরিভাষায় ডিসফ্যাজিয়া বলা হয়ে থাকে।

দীর্ঘ ছয় থেকে সাত মাস ধরে এই সমস্যায় ভুগছিলেন। স্থানীয় বাজারের বিভিন্ন ফার্মেসি থেকে তথাকথিত গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা বলে অনেক ওষুধ খেয়েছেন। আমার কাছে আসার পর রোগী দেখে আমার ইসোফেজিয়াল ক্যান্সার (খাদ্য নালীর) মনে হলে upper GI endoscopy করাই। এবং আমার ক্লিনিক্যাল সন্দেহটা সঠিক হয়।

রোগীর খাদ্যনালীর ক্যান্সার ধরা পড়ে। অনেক মানুষ প্রচুর পান সুপারি খায়। যেটাকে সিলেটের আঞ্চলিক ভাষায় গুয়া পান খাওয়া বলা হয়। অনেক রোগীকে পান খাওয়ার জন্য নিষেধ দিলে উনারা বলেন ভাত না খেয়ে থাকতে পারবেন কিন্ত গুয়া পান ছাড়া যাবে না।

অনেক রোগীরা বলেন, পান সুপারি খেয়ে উনারা ঠেকে গেছেন, পান সুপারি খাওয়া ছেড়ে দেয়া উনাদের জন্য অসম্ভব। মেডিকেল সায়েন্স গবেষণা করে প্রমাণ করেছে খাদ্যনালীর ক্যান্সার (Oesophagial carcinoma) এর অন্যতম কারণ এই পান সুপারি বা গুয়া পান খাওয়া। পান সুপারি ওরাল ক্যান্সারেরও কারণ।

কোন সমস্যাই ছোট করে দেখার সুযোগ নেই মেডিকেল সায়েন্সে। অনেক বড় বড় রোগ আপনার শরীরে বাসা বাঁধতে পারে আপনাকে না জানান দিয়েই। এমন সামান্য উপসর্গের আড়ালে লুকিয়ে থাকতে পারে ক্যান্সার, যা আপনি পাত্তাই দেননি। সেজন্য বলছি, আপনার যেকোন সমস্যায় একজন গ্রাজুয়েট রেজিস্টার্ড চিকিৎসক এর পরামর্শ নিন।।

আপনি সচেতন হলেই বেঁচে যাবে আপনার প্রিয়জন।